রবিবার, ১৬ জুন ২০২৪, ১২:৩০ অপরাহ্ন

‘একটা সংসার শেষ হয়ে গেল’

  • প্রকাশের সময় : ০৭/০৩/২০২৩ ১১:১৯:৩৫
এই শীতে ভাঙন আতঙ্কে দিন কাটছে তাদের
Share
9

‘বাসার জন্য কিছু স্যানিটারি সরঞ্জাম কিনতে গিয়েছিলেন মমিনুল ইসলাম (৩৮) ও তাঁর স্ত্রী নদী বেগম (৩৫)। কে জানত এই যাওয়াই হবে শেষ যাওয়া। এরপর তাঁরা একসঙ্গে লাশ হয়ে ফিরবে। আহারে, একটা সংসার এভাবে শেষ হয়ে গেল।’

বলছিলেন রাজধানীর গুলিস্তানে বিআরটিসি কাউন্টারের পাশের একটি ভবনে ভয়াবহ বিস্ফোরণের ঘটনায় নিহত মমিনুলের চাচা জয়নাল আবেদীন।

ভাতিজা ও তাঁর স্ত্রীর মর্মান্তিক দুর্ঘটনার খবর শুনে তিনি ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ছুটে আসেন। এখানে তিনি দুজনের লাশ শনাক্ত করেন।

তিনি জানান, পুরান ঢাকার চকবাজারের ইসলামবাগ এলাকায় থাকতেন এই দম্পতি।

আজ মঙ্গলবার বিকেল পৌনে পাঁচটার দিকে রাজধানীর গুলিস্তানে বিআরটিসি কাউন্টারের পাশে একটি সাত তলা ভবনের বেসমেন্টে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় ঢাকা মেডিকেলের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. নাজমুল হক ১৭ জন নিহত হওয়ার তথ্য নিশ্চিত করেছেন। আহত হয়েছেন শতাধিক।

তিনি জানান, আহতদের মধ্যে অর্ধশতাধিক ব্যক্তিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। তাদের মধ্যে ১১ জনকে মৃত অবস্থায় নেওয়া হয়। এছাড়া হাসপাতালে যাওয়ার পরে আরও ৬ জনের মৃত্যু হয়। নিহতদের মধ্যে দুই জন নারী এবং ১৫ জন পুরুষ। তাৎক্ষণিকভাবে তাঁদের বিস্তারিত পরিচয় জানা যায়নি।

ফায়ার সার্ভিস জানিয়েছে, বিস্ফোরণে ৭ তলা ভবনের পাশে আরেকটি ৫ তলা ভবন ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। তবে কোনো ভবনই ধসে পড়েনি। সাত তলা ভবনের নিচতলায় একটি স্যানিটারি দোকান ছিল। তার ওপরের কয়েক তলায় ব্র্যাক ব্যাংকের অফিস রয়েছে। বিস্ফোরণে বেশ কয়েকটি তলা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

এদিকে, জরুরি প্রয়োজনে রক্তদানের আহ্বান জানিয়েছে ফায়ার সার্ভিস। রক্তদানে আগ্রহীদের ঢামেক হাসপাতালের জরুরি বিভাগে যেতে অনুরোধ করা হয়েছে।


সিলেট প্রতিদিন / এসএএম


Local Ad Space
কমেন্ট বক্স
© All rights reserved © সিলেট প্রতিদিন ২৪
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরি